জয়সাগর দীঘি

 লিখেছেনঃ
  নভে. 29, 2019
  673 Views
0 0

সিরাজগঞ্জ জেলার রায়গঞ্জ উপজেলায় বেশকিছু ঐতিহাসিক নিদর্শন রয়েছে যার মধ্যে জয় সাগরদিঘী অন্যতম। প্রাচীনকালে এই দীঘির আয়তন ছিল ৫৮ একর। এটি তাড়াশ থেকে ৬ কিলোমিটার উত্তর-পূর্বে নিমগাছি হাটের পশ্চিমে অবস্থিত। চারপাশে ২৮ টি ঘাট দিয়ে এই দিঘি তৈরি করা হলেও বর্তমানে ঘাট গুলোর কোন চিহ্ন নেই। বল্লাল সেন এর বংশধর রাজা অস্তু সেন এর দুর্গ ও নিবাস ছিল এই দিঘির পারে এখনতো বিলুপ্ত। জয় সাগরদিঘী ছাড়াও রাজা অস্তু সেন তার সেনাপতি প্রতাপের নামে প্রতাপ দিঘি ভাই উদয়ের নামে উদয় দিঘি কন্যা ভদ্রাবতী নামে ভদ্রা দীঘি খনন করেন।

জয়সাগর দীঘি নিয়ে বিভিন্ন রকম জনশ্রুতি আছে। কেউ বলেন ফিরোজ শাহ পুত্র বাহাদুর শাহ রাজা ও অস্তু সেনের কন্যা ভদ্রাবতী কে দেখে মুগ্ধ হন। বিয়ের প্রস্তাব দিলে রাজা অস্তু সেন সম্মত না হওয়াই বাহাদুর শাহ ভদ্রাবতী কে অপহরণ করে নিমগাছিতে নিয়ে যান। পরবর্তীতে রাজা অস্তু সেন তার সেনাপতি সহ বাহাদুর শাহ কে আক্রমণ করেন। নিমগাছি প্রান্তরে ব্যাপক যুদ্ধ হয়। মুষ্টিমেয় থাকায় বাহাদুরশা যুদ্ধে পরাজয় স্বীকার করেন। রাজা অস্তু সেন যুদ্ধে জয় লাভ করে ভদ্রাবতী কে উদ্ধার করেন আর এর স্মৃতি হিসেবে নিম গাছির কাছে জয় সাগর নামে দিঘী খনন করেন। যুদ্ধজয়ের কারণেই এই দীঘিটি নাম জয় সাগর করা হয়।

অবস্থান

এটি বাংলাদেশের রাজশাহী বিভাগের সিরাজগঞ্জ জেলার রায়গঞ্জ উপজেলার সোনাখাড়া ইউনিয়নের নিমগাছি ও গতিথা দুই মৌজার মাঝে অবস্থিত।

[ সিরাজগঞ্জ শহর থেকে রায়গঞ্জ উপজেলা ২৩ কিলোমিটার। বাস বা সিএনজি যোগে ভুঁইয়াগাঁতি বাসস্ট্যান্ডে নামতে হবে। ৪০ মিনিটের মত সময় লাগে আর ভাড়া পড়বে ২৫-৩০ টাকার মতো।ভুইয়াগাঁতী বাস স্ট্যান্ড হতে সিএনজি রিকশা যোগে নিমগাছি বাজার হয়ে নিমগাছি বাজার থেকে প্রায় ৫০০ মিটার দূরত্ব পশ্চিম দিকে জল সাগর দিঘিতে আসতে পারেন]
কিভাবে যাবেন
রাজধানী ঢাকার কল্যাণপুর ও গাবতলী বাস টার্মিনাল হতে অথবা মহাখালী বাস টার্মিনাল হতে ঢাকা হতে বগুড়া গামী অথবা ঢাকা-রাজশাহী গামী যেকোনো বাসে চলে ভবন করতে পারবেন। এছাড়া ঢাকা থেকে সিরাজগঞ্জ শহরে বেশ কয়েকটি বাস যোগে আসতে পারেন।
বাস
ঢাকা লাইন পরিবহন (টেকনিক্যাল কাউন্টার মোবাইল-01879116916, সিরাজগঞ্জ মোবাইল-01879116912)
অভি ক্লাসিক  (টেকনিক্যাল মোবাইল-01715155939, সিরাজগঞ্জ মোবাইল-01715114180)
নন এসি ভাড়া ২৫০ টাকা
এছাড়া হানিফ, ন্যাশনাল,শ্যামলী, দেশ ট্রাভেলস  যোগে সিরাজগঞ্জ   যেতে পারেন।
ট্রেন

ঢাকা থেকে উত্তরবঙ্গগামী বেশ কয়েকটি ট্রেন সিরাজগঞ্জ মনসুর আলী স্টেশন দাঁড়ায়। ঢাকা কমলাপুর ও এয়ারপোর্ট স্টেশন থেকে পুরো দিনেই সিরাজগঞ্জে ট্রেন পাওয়া যায়।

কোথায় থাকবেন

সিরাজগঞ্জ শহরে থাকার মতো বিভিন্ন মানের হোটেল রয়েছে।
হোটেল আরমানি, মুজিব সড়ক, মোবাইল-01711340519
হোটেল অনিক ,মুজিব সড়ক, মোবাইল-01712062061
হোটেল আল হামরা, স্বাধীনতা স্কয়ার, মোবাইল-01745629264
হোটেল উত্তর ভিলা, সিরাজগঞ্জ রোড চৌরাস্তা,মোবাইল-01712623180[রায়গঞ্জ  উপজেলা সদর থাকতে চাইলে ডাকবাংলো থাকতে পারেন সে জন্য আগে থেকে অনুমতি নিয়ে রাখতে হবে]
[ হোটেল গুলোর ভাড়া তিনশ থেকে তিন হাজার টাকার মধ্যে পড়বে]
Article Categories:
রাজশাহী
banner

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।